Bangalore sexy aunties online for free chat

Only horny twinks with smashing appetite for cock, fucking for hours and enjoying anal sex until exhaustion.Twinks that are amateurs but very skilled in ass fucking, either taking it or giving it in insane XXX scenes. We’re pumped to announce that this Friday, February 23rd, Elite3 will be streaming Yeah Jam Fury: U, Me, Everybody! In case you’re unfamiliar with Elite3, they’re mostly known for their Pokemon ‘Bridged’ video series. You may also recognize them from collaborations they’ve done with Team Four Star through voice work and videos from their gaming channel. The undersigned health care provider may revoke this authorization or change the fax number, provided that the undersigned health care provider gives Lab Corp reasonable written notice.Such notice MUST be faxed to (858) 486-5806 AND/OR emailed to [email protected] women from all over the world, exposed in front of the cam after slow motion sessions of undressing and fingering their warm little pussies.

Absolute passion and exclusive access into girls solo shows while they pose nude and undress in some of the most sensual and insolent modes.

আর তাছাড়া এই যেন আমাদের বংশের নিয়ম।’ শ্যামল ও মলি দু’জনেই একসাথে বলে ওঠে, ‘সেটা কী রকম?

’ ওদের মা বলর, ‘তোরা যাকে বাবা বলে জানিস, সে আসেলে তোদের মামা মানে আমার দাদা। ছোট্ট বেলা থেকেই আমি দাদা একই ঘরে একই বিছানায় ঘুমোতাম। দাদা আমার থেকে তিন বছরের বড় ছিল আমরা ধীরে ধীরে বড় হতে থাকলাম।চৌদ্দ বছর বয়সেই আমার শরীরে যৌবন্উপচে পড়ে। বেশ বড় বড় ডাঁসা পেয়ারার মত দুটো মাই, বেশ চাওড়া পাছা, দেখে মনে হবে পূর্ণ যুবতী। গুদের চারপাশে অল্প অল্প বাল গজাতে শুরু করেছে। সেই সময় দাদা সতেরো বছরের যুবক। বেশ শক্ত সামর্থ চেহারা। ‘এক দিন রাতে আমি আর দাদা ঘুমিয়ে আছি। শরীরের উপর চাপ অনুভব করলে আমার ঘুম ভেঙ্গে গেল। ঘরের জিরো পাওয়ারের আবছা আলোয় লক্ষ করলাম, আমার আমার সারা শরীরের একটুকরাও কাপড় নেই। আমার কচি নরম স্তন দুটো দাদা দু’হাত দিয়ে সমানে টিপছে। কখনো স্তনের বোঁটা মুখে নিয়ে চুষছে।আমার ভীষণ সুখ হচ্ছিল।আমি দাদাকে কোন রকম বাধা না দিয়ে চুপ করে চোখ বুজে পড়ে থাকলাম। মুহূর্ত্বে টের পেলাম, একটা মোটা শক্তমত কি যেন আমার গুদটা ফালা ফালা করে ফেঁড়ে গুদে ঢুকছে। উঃ কী ব্যাথা!

’ শ্যামল মাথা নিচু করে কি লিখছিল। তেমনি মাথা নিচু করেই জবাব দিল, না।’ মালি বলল – দেখ না, বেশ বড় ডাঁসা পেয়ারা। শ্যামল এবার মুখ তুলে বোনের দিকে তাকিয়ে বলল, দেখেছি তবে একটা খাব না। যদি তিনটেই খেতে দিস, খেতে পারি।’ মলি বলর, ‘বারে, আমি তো এই একটা পেয়ারা নিয়ে এলাম। তোকে তিনটে দেব কী করে?

’ শ্যামল বোনের বুকের দিকে তাকিয়ে ইঙ্গিত করে বলর, ‘আমি আমি জানি তোর কাছে আরো দুটো পেয়ারা আছে এখন তুই যদি দিতে না চাস তো দিবি না।’ দাদার ইঙ্গিত বুঝতে পেরে মলি লজ্জা মাখা মুখে বলল, ‘দাদা, তুই কিন্তু দিন দিন ভারি শয়তান হচ্ছিস।’ শ্যামল বলল ‘বারে, আমি আবার কী শয়তানি করলাম? তাছাড়া বাড়িতে মাও নাই, জেঠুর বাড়ি গেছে, এক সম্পাহ পরে আসবে। বাড়িতে তো আমি আর তুই ছাড়া আর কেউ নেই। তবে তুই যদি তোর কোন লাভারকে আসতে বলিস তো সে কথা আলাদা। মলি বলে, বাজে বকিস না দাদা। তুই ভাল করেই জানিস যে আমার কোন লাবার নেই। পাড়ার কিছু ছেলে যে আমার পেছনে ঘোরে না তা তো নয়। আমি তাদের পরিষ্কার বলে দিয়েছি আমি এনগেজ্ড্। না হলে ওরা কবেই আমাকে পোয়াতি করে দিন। যাক ওসব কথা, তুই ঘরের দরজাটা বন্ধ কর, আমি ততক্ষণে জামা খুলছি।’ এই বলে মালি জামা খুললে ওর ধবধবে সাদা খাড়া খাড়া দুধ দুটো লাফিয়ে বেড়িয়ে পড়ল। শ্যামল তার অষ্টাদশী যুবতী বোনের নিটোল দুধ দুটো দ’হাতে ধরে টিপে বলর, মিথ্যুক। এত সুন্দু ডাঁসা পেয়ারা দুটো লুকিয়ে রেখে কিনা বলছিস নেই’। মলি বলে, আমি এসব তো তোর জন্যই যত্ন করে রেখেছি। আমি অনেকদিন থেকেই মনে মনেতোকে আমার স্বামী বলে মেনে নিয়েছি। ঠিক করেছি বিয়ে যদি করতেই হয় তো তোকেকেই করবো। আমার রুপ যৌবন সব তোর হাতে সপেঁ দেব।কিন্তু লজ্জ্বায় তোকে বলতে পারিনি। আমি তো মেয়ে, কাজেই এইটুকু তো ভাবতে দিবি যে, আমি নিজে থেকে সবকিছু তোকে খুলে দেয়নি। তুই চেয়েছিস, তাই দিয়েছি। আজ তুই আমাকে নিয়ে যা খুশি তা-ই করতে পারিস,ম মানা করব না। আজ আমার জীবনের সব থেকে খুশির দিন।’শ্যামল বোনের ডাঁসা পেয়ারার মত দুধদুটো টিপতে টিপতে বলল, ‘মলি, তোর দুধ দুটো কিন্তু দারুণ হয়েছে বেশ টাইট দুধ টেপাতে তোর ভালো লাগছে তো? তাই আরো জোরে জোরে টেপ, তাহলে আরো ভাল লাগবে’। শ্যামল বোনের দুধদুটো টিপতে টিপতে বোনে মুখে, ঘাড়ে, গালায় মুখ ঘষে আদরে আদরে ভরিয়ে দেয়। শ্যামল যুবতী বোনের বগলের চুলে মুখ ঘষে বলে, তোর বগলে তো বেশ চুল হয়েছে। তোর ওখানেও মানে গুদেও এরকম চুল পাব তো?

Leave a Reply